মার্কিন সৈন্যদের উপর ফের হামলা ইরানের, ইরাকের বিমানবন্দরে উপর্যুপরি চারটি রকেট হানা

0
Four rockets hit Iraqi airbase hosting American Military Forces

Last Updated on

মার্কিন যুক্তরাষ্ট্র ও ইরানের মধ্যে সংঘর্ষ অব্যহত। রবিবার ইরান আবারও মার্কিন সেনাকে নিশানা করে আক্রমণ শানায়। ইরাকের বিমানবন্দরে যেখানে মার্কিন সেনা অবস্থান করছিল সেখানে ইরান রকেট নিক্ষেপ করে। এএফপি নিউজ এজেন্সি জানিয়েছে, ইরান ইরাকের বিমানবন্দরে চারটি রকেট নিক্ষেপ করেছে। কুদস জেনারেল কাসিম সুলেইমানির মৃত্যুর পর ইরান প্রতিশোধ নিতে বুধবার ইরাকে মার্কিন সামরিক ঘাঁটিতে মিসাইল হামলা করে । ইরান দাবি করেছে যে হামলায় ৮০ জনেরও বেশি আমেরিকান নিহত হয়েছিল ।

আরো পড়ুন :দিল্লী আর লন্ডনে হামলার ষড়যন্ত্র করেছিলেন সুলেমানী : ডোনাল্ড ট্রাম্প

আমেরিকার উপর প্রতিশোধ নেওয়ার জন্য ইরান ‘অপারেশন শহীদ সুলেইমানি’ নামে অপারেশন পরিচালনা করে । ইরানের বিপ্লবী গার্ড কর্পস একটি বিবৃতি জারি করে বলে এই অপারেশন মার্কিন হামলাকারীদের অপরাধ ও সন্ত্রাসবাদী হামলার প্রতিশোধ নিতে এবং সুলেইমানির কাপুরুষোচিত হত্যা ও বেদনাদায়ক শাহাদতের প্রতিশোধ নিতে পরিচালনা করা হবে । ইরান আমেরিকাকে নিষ্ঠুর, সন্ত্রাসবাদী এবং শয়তান হিসাবে বর্ণনা করে। শুধু তাই নয়,আমেরিকাকে সহায়তা করা দেশগুলিকেও সতর্ক করে তারা । শুক্রবার আমেরিকা ইরানের উপর নতুন নিষেধাজ্ঞা জারি করেছে । ইরাকের সামরিক ঘাঁটিতে ইরানের ক্ষেপণাস্ত্র হামলার জবাবে মার্কিন যুক্তরাষ্ট্র এই পদক্ষেপ নিয়েছে ।

আরো পড়ুন :ট্রাম্পের মাথার দাম ৮০ মিলিয়ন ডলার,ঘোষণা হল সুলেইমানির জানাজাতে

মার্কিন পররাষ্ট্রমন্ত্রী মাইক পম্পেও এবং অর্থমন্ত্রী স্টিভেন নিউচিন বলেছেন যে নতুন নিষেধাজ্ঞা মধ্য প্রাচ্যের অস্থিরতার পাশাপাশি মঙ্গলবারের ক্ষেপণাস্ত্র হামলার সাথে জড়িত কর্মকর্তাদের ব্যাপক ক্ষতি করবে। নিউচিন বলেছিলেন যে রাষ্ট্রপতি ডোনাল্ড ট্রাম্প ইরানি টেক্সটাইল, নির্মাণ, উৎপাদন ও খনির সঙ্গে জড়িত বিষয়ে প্রতিবন্ধকতা আরোপ করার জন্য একটি সরকারী আদেশনামা জারি করবেন। তারা ইস্পাত এবং লোহা ক্ষেত্রের বিরুদ্ধে পৃথক বিধিনিষেধ আরোপ করবে । অর্থমন্ত্রী বলেছিলেন যে এর ফলাফল হবে যে আমরা ইরানি সরকারকে কোটি কোটি ডলার সহায়তা বন্ধ করব ।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here