২,৭৮,২৭৫ টি আপেল বীজ দিয়ে বানানো বিশ্বের দীর্ঘতম মালা পৌঁছবে গিনেস বুক অফ ওয়ার্ল্ড রেকর্ডে

0

Last Updated on

আপেলের বীজ দিয়ে দীর্ঘতম মালা গেঁথে দ্বিতীয়বারের জন্য বিশ্ব রেকর্ড গড়ার লক্ষ্যে এগোচ্ছেন নদীয়ার শান্তিপুরের গোবিন্দপুরের যুবক অনুপম সরকার । আগে স্ট্যাপেল পিন দিয়ে ১৮১৯ ফুট দৈর্ঘ্যের বিশ্বের দীর্ঘতম স্ট্যাপেল চেন তৈরি করেছিলেন অনুপম | যা তাঁকে এনে দিয়েছিল গিনেস বুক অফ ওয়ার্ল্ড রেকর্ডের খেতাব | এবার আপেলের বীজ দিয়ে দীর্ঘতম আপেল বীজের মালা তৈরি করেছেন তিনি । সেই আপেল বীজের মালা তিনি এবার পাঠাবেন লন্ডনে গিনেস বুক অফ ওয়ার্ল্ড রেকর্ডসের দফতরে । ইতিমধ্যেই গিনেস বুক অফ ওয়ার্ল্ড রেকর্ডসের গাইডলাইন মেনে তাঁর তৈরি করা দীর্ঘতম আপেল বীজের মালার পরিমাপ পর্ব সাঙ্গ করা হয়ে গিয়েছে । এবারও বিশ্ব রেকর্ড গড়ার ব্যাপারে একশ শতাংশ আশাবাদী যুবক অনুপম সরকার । তাঁর দাবি, রেকর্ড করতে গেলে যা গাইডলাইন মেনে চলা দরকার, সেগুলির সবই তিনি পালন করেছেন |

আপেলের বীজ দিয়ে তৈরি করা অনুপমের দীর্ঘতম মালা পরিমাপ করার পর সার্ভেয়ার ইঞ্জিনিয়ার থেকে শুরু করে পর্যবেক্ষকদেরও প্রায় সকলেরই বিশ্বাস, এবারও সম্ভবত অনুপম সরকার করতে পারেন ওয়ার্ল্ড রেকর্ড । গিনেস বুক অফ ওয়ার্ল্ড রেকর্ডসে দ্বিতীয় বার নাম তোলার জন্য শান্তিপুরের গোবিন্দপুরের ছেলে অনুপম সরকার বেছে নিয়েছেন আপেলের বীজ । কিন্তু কেন এই ভাবনা ? অনুপম বলেন , আপেল বীজের মধ্যে সায়ানাইড থাকে । যা খুবই বিষাক্ত । মানুষের শরীরে মারাত্মক ক্ষতি করে । একটু বেশি পরিমাণে আপেল বীজ কেউ চিবিয়ে খেয়ে ফেললে যে কোন মানুষ কোমায় চলে যেতে পারেন । এমনকি ,তার মৃত্যু পর্যন্ত ঘটতে পারে । ২০১২ সালে আট জন এবং ২০১৩ সালে গোটা বিশ্বে প্রায় তিনশ মানুষ এই আপেল বীজ খেয়ে মারা গিয়েছেন । তাই আপেল বীজ সম্পর্কে বিশ্বের মানুষকে সচেতন করে তোলার লক্ষ্যেই তিনি আপেল বীজ নিয়ে কাজ করার সিদ্ধান্ত নেন | তবে তিনি প্রথম নন | পোলান্ডের একজন এই নিয়ে একটি রেকর্ড করেছেন | অনুপম ওই রেকর্ড ভাঙার লক্ষ্যেই এগিয়ে চলেছেন ।

ইতিমধ্যে আপেলের বীজ দিয়ে তিনি যে দীর্ঘ মালাটি তৈরি করেছেন, তা সমীক্ষক ও পর্যবেক্ষকদের হিসাব অনুযায়ী,তার দৈর্ঘ্য ১০৭৪২.৩২ বা ৫৩১.০৬ মিটার । শান্তিপুরের পাবলিক লাইব্রেরীর মাঠে অনুপম সরকারের তৈরী করা আপেল বীজের মালার পর্যবেক্ষণ ও পরিমাপ করতে হাজির হয়েছিলেন শান্তিপুর ব্লকের অ্যাসিস্ট্যান্ট এগ্রিকালচারাল ডেভলপমেন্ট অফিসার সন্দীপ মিত্র, স্থানীয় ব্লক ডেভেলপমেন্ট অফিসার সুমন দেবনাথ, রাজ্য পুলিশের শান্তিপুরের সার্কেল ইনস্পেক্টর জয়ন্ত লোধ চৌধুরী, সার্ভেয়ার ইঞ্জিনিয়ার অভিজিৎ প্রামানিক সহ অনেকেই ।

অনুপম জানিয়েছেন,গত বছর নভেম্বর মাসে গিনেস বুক অফ ওয়ার্ল্ড রেকর্ডস কর্তৃপক্ষের কাছে আপেল বীজের অন্তত এক হাজার ফুট দীর্ঘ মালা তৈরী করার চ্যালেঞ্জ জানিয়ে আবেদন করেছিলেন । চলতি বছরের জানুয়ারি মাসের প্রথমে কাজ শুরু করার নির্দেশ মেলে | তারপর থেকেই কাজে হাত দেন তিনি | যদিও খোলা বাজার থেকে আপেল বীজ কিনে এই কাজ করা একপ্রকার দুঃসাধ্য ছিল তাঁর কাছে । সে সেয় তাঁকে সাহায্যের হাত বাড়িয়ে দেন ব্লকের অ্যাসিস্ট্যান্ট এগ্রিকালচারাল ডেভলপমেন্ট অফিসার সন্দীপ মিত্র | শুরু হয় আপেল বীজ সংগ্রহ | রাজস্থান ,দিল্লি সহ বিভিন্ন জায়গা থেকে আসা মোট ২,৭৮,২৭ টি বীজ দিয়ে ৮৪ দিনে মালাটি তৈরি করেন অনুপম | কাপড় সেলাই করার সামান্য সূঁচ ও সুতো দিয়ে একটার পর একটা আপেল বীজ গেঁথে আমাকে এই মালা তৈরি করতে হয়েছে ।

৮৪দিনে ১৮ঘন্টা রোজ খেটে তৈরি করা এই মালার স্বীকৃতির অপেক্ষায় আবার দিন গোনার পালা শান্তিপুরবাসী অনুপম ও তার শুভানুধ্যায়ীদের | ১লা জুলাই প্রথমবারের স্বীকৃতি মিলেছিল গিনেস বুক অফ ওয়ার্ল্ডের তরফে | আবারও কি সেই জুলাইয়েই অনুপমের মুকুটে নয়া পালক ,এই প্রশ্নের উত্তরে আর একটু সবুর করতে হবে |

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here