বাল্মীকী প্রতিভা থেকে রক্তকরবী পথ দেখাচ্ছে সংশোধনাগারের বন্দীদের

0

Last Updated on

সংশোধনাগারের বাইরে এসে নাটক মঞ্চস্থ করলেন বন্দীরা । কারাগারের বদ্ধ দেওয়ালের ভিতরে নয়, আর পাঁচটা সাধারণ মানুষের মতো সংশোধনাগারের বাইরে এসে  নাটক মঞ্চস্থ করলেন সংশোধনাগারের আবাসিক বন্দিরা । শনিবার বিকেলে কৃষ্ণনগর রবীন্দ্র ভবনের মঞ্চে মঞ্চস্থ হল রবীন্দ্রনাথ ঠাকুর রচিত রক্তকরবী । যা চাক্ষুষ করার জন্য রবীন্দ্র ভবনের দর্শকেরা মুখিয়ে ছিলেন । মঞ্চস্থ হল এই নাটক |সেখানেই এদিন করিমপুরের ব্যাংক ডাকাতির অভিযোগে অভিযুক্ত আবাসিক বন্দি থেকে শুরু করে, নদীয়ার বিভিন্ন প্রান্তের সাজাপ্রাপ্ত আবাসিক বন্দিরা সিঞ্চন নাট্য গোষ্ঠীর নাট্যকর্মীদের সঙ্গে একত্রিত হয়ে রক্তকরবী নাটক মঞ্চস্থ করলেন । আবাসিক বন্দীদের এই প্রয়াসকে উৎসাহ দিতে উপস্থিত ছিলেন সারগাছি রামকৃষ্ণ মঠের মহারাজ স্বামী দিব্যানন্দ । এছাড়াও  উপস্থিত ছিলেন ডিআইজি (সংশোধনাগার) অরিন্দম সরকার প্রমুখ ।

বন্দীদের শিল্পীসত্ত্বাকে বের করে আনতে দিনের পর দিন তাদের সঙ্গে সময় কাটিয়েছিলেন শিল্পী অলকানন্দা রায় | প্রতিভার সন্ধানে ঘোরা বিখ্যাত এই নৃত্যশিল্পী অক্লান্ত পরিশ্রম করে বাল্মীকী প্রতিিভা মঞ্চস্থ করেছিলেন | অপরাধমূলক কাজে অভিযুক্ত বন্দী নাইজেল আকারাকে নতুন জীবন দিয়েছিলেন শিল্পী অলকানন্দা | বন্দীদের নাচ শিখিয়ে তাদের দিয়ে নৃত্যনাট্য করিয়ে সকলকে তাক লাগিয়ে দিয়েছিলেন তিনি | সমাজের চোখে তারা যাতে অবহেলিত না হয়, তার জন্য সংশোধানগারের ভিতরেও বিভিন্ন রকম প্রশিক্ষণের ব্যবস্থাও করা হয়ে থাকে । নানা সংশোধনাগারে বন্দীদের হাতেরতৈরি জিনিসের প্রদর্শনীো করা হয়ে থাকে | আবাসিক বন্দীদের নিয়ে  রক্তকরবী নাটক ইতিমধ্যেই বিভিন্ন জায়গায় সারা ফেলেছে । কলকাতাতেও তারা এই অনুষ্ঠান করবেন বলে আশা রাখেন |রক্তকরবী বা বাল্মীকী প্রতিভা যে তাদের অপরাধ জগতের অন্ধকারকে মুছে ফেলতে সাহায্য করবে তা একপ্রকার নিশ্চিত সকল বন্দীই |

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here