” রাজনীতি করতে গেলে অনেক কিছুই বলতে হয় ” বললেন কেষ্ট

0

Last Updated on

বীরভূম: “নকুলদানা” ও “উন্নয়ন দাঁড়িয়ে আছে”, এই দুই লব্জে সাংঘাতিক জনপ্রিয় অনুব্রত মণ্ডল| লোকসভা নির্বাচনে এই দুই বয়ানে বিতর্কও খুব কম কিছুু হয়নি| উন্নয়ন কীভাবে বাইরে দাঁড়িয়ে তা নিয়ে প্রশ্ন করেছেন| তাঁর ব্যাখ্যাও শাসক-বিরোধীদের ক্ষেত্রে ছিল আলাদা আলাদা রকমের| এসবের কেন্দ্রবিন্দুতে যিনি ছিলেন সেই কেষ্টদা কিন্তু বৃহস্পতিবারের দুপুরে ফলাফল যখন প্রায় পরিষ্কার হয়ে গিয়েছে,তখনও তিনি অটল তাঁর মন্তব্যে| রাজ্যে তৃণমূলের আসন যতটা কম দেখাচ্ছে অতটা নয়| বরং তিনি এখনও মনে করছেন ৩৫টার বেশিই পাবে তাঁর দল| কিন্তু বিষয় তা নয়| আসানসোলের বিজেপি সাংসদ প্রার্থী বাবুল সুপ্রিয়ো লোকসভা কেন্দ্রে যদি না হরেন তবে তিনি রাজনীতিই ছেড়ে দেবেন| সকাল থেকেই আসানসোলের যা ট্রেন্ড ছিল তা থেকে ক্রমে পরিষ্কার হয় বাবুল তাঁর আসনটি ধরে রাখতে চলেছে| বেলা বাড়ার সঙ্গে সঙ্গে তা ক্রমেই আরও পরিষ্কার হয়ে উঠেছে| শেষমেষ ৮0হাজারেরও বেশি ভওটে নিকটতম প্রতিদ্বন্দীকে হারিয়ে বাবুল সুপ্রিয়ও জিতেছেন এই কেন্দ্রে| তবে এবার কী বলবেন কেষ্ট? রাজনীতি কি ছেড়ে দেবেন? না, মোটেই না| এবার তাঁর স্বভাবসিদ্ধ সপ্রতিভ ভঙ্গিতে বললেন, ওসব বলতে হয়| ওতো হল রাজনীতির কথা| তা বলে কি ছেড়ে দিতে হবে? প্রসঙ্গ টানলেন প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদিরও| এখন একটাই প্রশ্ন সাধারণ ভোটারের,রাজনীতি করার জন্যই উন্নয়নের প্রতিশ্রুতি দিচ্ছেন না তো বীরভূমের জেলা সভাপতি অনুব্রত মণ্ডল?

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here