উপত্যকার নিষিদ্ধ সংগঠনের মহিলা নেত্রী আশিয়া আনদ্রাবির বাড়ি নিজেদের অধীনে নিল এনআইএ

0

Last Updated on

জম্মু-কাশ্মীর : দুখতারান ই মিলাত | উপত্যকার বিচ্ছিনতাবাদী সংগঠনের মহিলা প্রধান আশিয়া আনদ্রাবির বাড়ি নিজেদের অধীনে নিল এনআইএ | বুধবার সকাল সকালই সেখানে সেই নোটিশ নিয়ে হাজির হন এনআইএ-র বিশেষ একটি দল | তার হাতে থাকা নোটিশ পড়ে শোনান আশপাশের মানুষদের | নোটিশে পরিষ্কারভাবে লেখা রয়েছে আশিয়া আনদ্রাবির এই বাড়িটিকে ব্যবহার করা হত জঙ্গী কার্যকলাপের কাজে | স্থানীয় জঙ্গী সংগঠন দুখতারেন-ই-মিলাতের প্রধান আশিয়া ওই সংগঠন ছাড়াও অন্যান্য জঙ্গী সংগঠনের সঙ্গে নিয়মিত যোগাযোগ রাখত এবং এই বাড়িটিকে সে সব কাজে ব্যবহার করা হোতো | তদন্তে এই তথ্য উঠে আসার পরই এনআইএর সুপারিটেনডেন্ট অফ পুলিশ বিকাশ কাঠেরিয়া এই নোটিফিকেশন জারি করেন ইউএপিএ ১৯৬৭ এর আইন অনুযায়ী | এর মাধ্যমে এই বাড়িকে কোন ভাবে বিক্রি, বসবাস বা ব্যবহার না করার নির্দেশ দেন তিনি | শ্রীনগরের সৌর এলাকার ৯০ফুটে রয়েছে বাড়িটি | এনআইএ কেস নম্বর ১৭/২0১৮NIA-DLIমূল মামলার সঙ্গে এটি কে যুক্ত করার কথাও বলা রয়েছে নোটিশটিতে |
জম্মু-কাশ্মীরের ডিজিপকেও পাঠানো হয়েছে এই নোটিশের প্রতিলিপি |
প্রসঙ্গত ,আশিয়া আনদ্রাবিকে ২০১৮সালের ৬ই জুলাই এনআইএ গ্রেফতার করে ভারত বিরোধী কার্যকলাপ ও অবৈধ কাজের জন্য | সেসময় থেকে জেলে থাকলেও এখনও সক্রিয় নিষিদ্ধ সংগঠন দুখতারেন | এনআইএ-র তদন্তে জানা গিয়েছে হিজবুল মুজাহিদিনের সঙ্গে এই সংগঠনের ঘনিষ্ঠতা আশিয়ার স্বামীর সূত্র ধরেই | আশিয়াপ স্বামী হিজবুল মুজাহিদিনের অন্যতম প্রতিষ্ঠাতা সদস্য | ১৯৯২সাল থেকে গ্রেফতার হওয়ার পর তার সাম্রাজ্য চালাচ্ছিল আশিয়া | মহিলা জিহাদীদের মধ্যে অত্যন্ত জনপ্রিয় এই বিচ্ছিন্নতাবাদী নেত্রী | গ্রেফতারের ১বছর পরে সম্পত্তি সিজ করার এই প্রক্রিয়া শুরু করল এনআইএ |

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here