মোদি বিরোধীতার টিকিট বিকোচ্ছে মার্কিন মুলুকে,কিনছে পাকিস্তান ও খালিস্তানী সমর্থকেরা

0
donald-trump-narendra-modi-US-visit1

Last Updated on

রাইজিং বেঙ্গল ডেস্ক: মার্কিন মুলুকে থাকা পাকিস্তান ও খালিস্তানী সমর্থকদের কর্মসূচি হল ভারতের প্রধানমন্ত্রী যখনই সে দেশে যাবেন , তখনই তার বিরোধীতা করা | রাস্তায় প্রতিবাদ দেখানো | এই মর্মে সিদ্ধান্ত নেয় এই দুই দেশের নাগরিকেরা | ইস্যু সেই কাশ্মীরের ৩৭০ ধারা বিলোপে ভারতের বিরুদ্ধে ক্ষোভ | বরাবরাই এই ইস্যুতে মোদি ও ট্রাম্পের কূটনৈতিক বন্ধুত্বকে টলাতে পারেনি পাকিস্তান | চেষ্টা অনেক করলেও লাভ হয়নি কিছু | পাকিস্তানকে আর্থিক সাহায্যের আশ্বাস দিলেও এই কাশ্মীর ইস্যুতে নিয়ে মুখে কুলুপ এঁটেছেন মার্কেন প্রেসিডেন্ট ট্রাম্প বরবারই |

আরও পড়ুন : আয়ারল্যান্ডের মাটিতে কাশ্মীর ইস্যুতে পাকিস্তানি মুসলিম যুবকের ভারতীয়দের প্রতি অভব্য আচরণ

একগুচ্ছ কর্মসূচি নিয়ে আগামীকালই ভারতের প্রধানমন্ত্রী উড়ে যাচ্ছেন মার্কিন যুক্তরাষ্ট্রে | সেখানে রাষ্ট্রসংঘের সাধারণ সভা ছাড়াও রয়েছে সে দেশের ইন্দো-আমেরিকানদের সঙ্গে একটি বিশেষ পদযাত্রায় সামিল হবেন দুই দেশের রাষ্ট্রপ্রধান | নাম হাওডি মোদি | গান্ধীজির ১৫০ বছরের মৃত্যু বার্ষিকী উপলক্ষে বিশ্বব্যাপী যে অনুষ্ঠান হচ্ছে ,মার্কিন মুলুকে দাঁড়িয়ে তার উপরেও বিশেষ ভাষণ দেবেন ভারতের প্রধানমন্ত্রী | বৃহস্পতিবারই সেকথা জানিয়েছেন ভারতের বিদেশ সচিব বিজয় গোখেল |

আরও পড়ুন : মন্দির ও স্কুলে তান্ডবের পর পাকিস্তানি সংখ্যালঘু হিন্দু ডাক্তারি পড়ুয়াকে ধর্ষণ ও খুন করল জেহাদীরা

মোদি-ট্রাম্পের সাক্ষাতে লক্ষ কোটির চুক্তি সাক্ষরিত হওয়ার কথা বলে সূত্রে খবর | তার মাঝেই এই প্রতিবাদ দেখাবে বলে ঠিক করেন ওই দেশের মোদি বিরোধারী | বিভিন্ন স্থানে মোদির উপস্থিতির সময় এই প্রতিবাদ দেখানো হবে | তারজন্য ১২টি জায়গা থেকে প্রতিবাদীদের তোলার জন্য ধার্য করা হয়েছে | তা লিফলেটের মাধ্যমে দেওয়া হচ্ছে ইচ্ছুকদের | সব থেকে আশ্চর্যের কথা মার্কিন মুলুকে ওই মোদি -বিরোধীতায় টিকিট কেটে যেতে হচ্ছে প্রতিবাদীদের | টিকিটের প্রাপ্তিস্থানও দেওয়া রয়েছে ওই লিফলেটটিতে | আর দেওয়া রয়েছে একটি নম্বর ও একটি ওয়েবসাইট | যে ১২টি স্থান থেকে বাস ঠিক করা হয়েছে মোদির সামনে বিরোধীতা করা জন্য সেগুলি সব কটিই ইসলাম ধর্মাবলম্বীদের স্থান | কোনোটি মসজিদ, কোনোটি ইসলাম ধর্ম প্রশিক্ষণ কেন্দ্র আবার কোনোটি মাদ্রাসা | ধর্মের নামে লোক একাট্টা করা ও জনমত তৈরির এই চেষ্টা দেখে অবশ্য আন্তর্জাতিক পর্যবেক্ষকদের বক্তব্য ,তাতে আখেরে কোন লাভ হবে না পাকিস্তানের | কারণ এই বিরোধীতায় মোদি-ট্রাম্প সম্পর্কের উপর কোন প্রভাব ফেলবে না |

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here