পাক সেনাবাহিনীর লুট,ধর্ষণ,সন্ত্রাসের বিরুদ্ধে বালোচিস্তানের অশান্ত রাস্তায় বালোচেরা, সরব একমাত্র ভারত

0

Last Updated on

দীর্ঘ একমাসের উপর কাশ্মীর বিচ্ছিন্ন দেশ ও বিদেশ থেকে | তার জন্য সোশ্যাল মিডিয়ায় যাদের প্রাণ কেঁদে উঠছে রাইজিং বেঙ্গলের এই প্রতিবেদন তাদের জন্য |পাক অধীকৃত বালোচিস্তানে প্রতি নিয়ত মানবাধিকার লুন্ঠিত হচ্ছে | মা-বোনেরা ধর্র্ষিত হচ্ছে পাক সেনাদের দ্বারা | আজাদ বালোচের স্বপ্ন দেখা বহু ছেলের কোন হদিশ নেই পরিবারের কাছে | প্রতিদিন প্রতিনিয়ত সেই ছবি পোস্ট হচ্ছে সোশ্যাল মিডিয়ায় |

আরও পড়ুন:
https://risingbengal.in/indian-army-k-nishana-pak-dhormoprocharok-er/

কিন্তু মেইন স্ট্রিম কোন আন্তর্জাতিক সংবাদমাদ্যমে তার কোন প্রতিফলন পাওয়া যায়না | কয়েকদিন আগেই জার্মানির ফ্রাঙ্কফুর্টে পাক হাই কমিশনারের কার্যালয়ের সামনে পাকিস্তান একটি সন্ত্রাসবাদী রাষ্ট্র এই স্লোগানে মুখর হয়েছিলেন কয়েকজন অনাবাসী বালোচ মানুষ | তখনকার মত পুলিশ সেই স্লোগান থেকে তারা বিরত হলেও সেটিই ছিল তাদের মনের কথা |

আরও পড়ুন:
https://risingbengal.in/indian-army-k-nishana-pak-dhormoprocharok-er/

নির্মম হত্যায় সামিল পাক সেনার বিরুদ্ধে সেখানে গর্জে উঠেছেন হিজাবের আড়ালে থাকা মহিলারাও | তার রুখে দাঁডতে চেয়েছেন এই অত্যাচারের বিরুদ্ধে | প্রতিনিয়ত পাকিস্তান অধীকৃত বালোচের মানুষ চাইছেন স্বাধীনতা |

আরও পড়ুন:
https://risingbengal.in/pakistan-railmontrir-bisforok-montobyo/

প্রতিবাদ প্রতিরোধ সামাল দিতে না পেরে অগণিত মানুষকে নিয়ে যাচ্ছে পাক সেনাবাহিনী | গন্তব্য টর্চার ক্যাম্প | কেউ পিরে আসছে অর্ধমৃত অবস্থায় | কেউ বা আর ফিরছেন না | সেই ভিডিও পোস্ট করা হচ্ছে অথচ তা দেখেও কোন প্রতিক্রিয়া নেই গোটা বিশ্বের |

আরও পড়ুন:
https://risingbengal.in/pakistan-kashmir-e-mon-na-diye-economy-te-dik/

কাশ্মীরের মত সেই খবর উঠছে না রাষ্ট্রসংঘে | পাকিস্তানের বিরুদ্ধে এই নিয়ে সরব হওয়া একমাত্র দেশ ভারত | ভরাত একাধিকবার পাকিস্তানের সেনাবাহিনীর অমানবিক তুলে ধরার চেষ্টা করেছে বিশ্বের দরবারে | কাশ্মীরের মুসলিমদের জন্য যাদের এত ভাবনা,তারা নিজেদের দেশের সীমান্তবর্তী মানুষ গুলির সঙ্গে যে আচরণ করে চলেছেন প্রতি মুহূর্তে তা শুধু নিন্দার নয়,ধিক্কারের যোগ্য | বালোচের প্রতিটি পরিবার এই প্রতিবাদে গর্জে উঠছে |

আরও পড়ুন:
https://risingbengal.in/tin-beloch-yuvoker-pak-birodhi-slogan/

প্রতিদিনই কোন না কোন প্রতিবাদ মিছিল বা সভা হচ্ছে | প্রশ্ন হচ্ছে আন্তর্জাতিক সংবাদ মাধ্যম গুলি কোন বৃহৎ স্বার্থের কথা ভেবে মুখে কুলুপ দিয়েছে তা ভেবে দেখার| কাশ্মীর ইস্যুতে ভারতের বিরোধীতায় সরব ব্রিটেনের এক তৃতীয়াংশ প্রায় মুসলিম সম্প্রদায়ের মানুষ | খাস লন্ডনের মেয়র একজন মুসলিম | সেখানে দাঁড়িয়ে মুসলিম দ্বারা ইহুদি নিপীড়নের খবর বিবিসির মত সংবাদ মাধ্যম প্রচার করবে একথা চিন্তা করা ভুল হবে বলে মনে করছেন পর্যবেক্ষকেরা | প্রশ্ন উঠছে বিশ্বের প্রথম সারির দেশ গুলির সঙ্গে একই আসনে বসতে চলা বলেই কি তবে কাশ্মীর ইস্যু নিয়ে ভারতের এত বিরোধীতা ?

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here