পথের ভিখারিদের সুস্থ করার ব্রত নিয়ে পুণের রাস্তায় সোনাওয়ানে দম্পতি

0

Last Updated on

মহাপুরুষেরা বলে গিয়েছিলেন সেবাই পরম ধর্ম | আর স্বামী বিবেকানন্দ বলেছিলেন, জীবে প্রেম করে যেইজন,সেইজন সেবিছে ঈশ্বর | ঈশ্বর প্রাপ্তির জন্য নয় কেউ কেউ সেবা করেন অন্যের মুখে হাসি ফুটিয়ে তুলতে | তাও আবার নিঃস্বার্থ | যেমনটি করে চলেছেন পুণের ডাক্তার দম্পতি | ডাঃ অভিজিত সোনাওয়ানে এবং তাঁর স্ত্রী ডাঃ মনীষা সোনাওয়ানে | তাঁদের পরিচালিত সোহম ট্রাস্টের কাজের বিষয় খুব অবাক করবে যে কোন মানুষকেই | এরা পথের ভিখারিদের সুস্থ করে তোলার জন্য অক্লান্ত পরিশ্রম করে চলেছেন ২০১৭-এর এপ্রিল মাস থেকে |

সকাল ১০টা থেকে বিকেল ৪টে | এরা ঘুরে বেড়ান পুণের পথে পথে | বিশেষ করে মন্দির,মসজিদ বা স্টেশন চত্বর | যেখানে কিনা অনায়াসেই চোখে পড়ে এক কোণায় বসে থাকা বৃদ্ধ কিংবা বৃদ্ধা ভিখারিদের | সযত্নে স্টেথো কানে দিয়ে তখনই চিকিতসক অভিজিত তার স্বাস্থ্য পরীক্ষায় লেগে পড়েন | ডায়াবেটিস,হার্ট বা অন্য অনেক রোগেরই ওষুধ সঙ্গে নিয়ে ঘোরা ডাক্তারবাবু তখনই তাদেরকে সেগুলি দিয়ে দেন উপশমের জন্য | আর যাদের ওখানে চিকিতসা করা সম্ভব নয়,তাদের ভর্তির ব্যবস্থা করে দেন কোন সরকারি বা বেসরকারি হাসপাতালে | এর পিছনে সেবা ছাড়াও এরেকটি উদ্দেশ্য হল এদেরকে সুস্থ করে স্বাভাবিক জীবনে অভ্যস্ত করে তোলা | তাদের হিসেব অনুযায়ী ৪৯ জন তাদের রোগী ভিক্ষা ছেড়ে অন্যান্য পেশার মাধ্যমে জীবিকা অর্জন করছেন বলে জানান তাঁরা | বয়সকালে চোখের ছানি নিয়ে ভুগছেন এমন ১৬০জন পথের মানুষকে তাঁরা অপারেশনের সুযোগ করে দিয়েছেন বলে আরও জানান |
পকেটের পয়সা খরচ করে করলেও চাহিদার লতুলনায় তাদের জোগাড় অত্যন্তই অপ্রতুল| তাই তাদের কাহিনী তুলে ধরেছেন একটি সোশ্যাল ফান্ড রেইজিং প্ল্যাটফর্মেও | আশা সেখান থেকে মিলবে কিছু সাহায্য | তাঁরা চান পুণে নয়,গোটা দেশেই চলুক সোহম ট্রাস্টের এই সেবামূলক কাজকর্ম |
তথ্য ও ছবি সৌজন্য : মিলাপ

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here