৩ জইশ জঙ্গি নিকেশে বড়সড় হামলার ছক বানচাল উপত্যকায়

0

Last Updated on

উপত্যকায় বড়সড় সাফল্য যৌথবাহনীর| বৃহস্পতিবার সকালেই দুই জঙ্গি নিকেশের পর আবারও এক জঙ্গি নিকেশ করলেন তারা| তৃতীয় ব্যক্তির পরিচয় জানা না গেলেও বাকি দুই জঙ্গি ভারতের জন্য ছিল মোস্ট ওয়ান্টেড| একাধিক সন্ত্রাসবাদী কার্যকলাপের সঙ্গে জড়িত থাকার জন্য তাদের বিরুদ্ধে ২০১৪২০১৫ সাল থেকে নানা থানায় এফ আই আর দায়ের করেছিল পুলিশ| খোঁজ চলছিল এদের| গোপন সূত্রে খবর পেয়ে বৃহস্পতিবার ভওর রাতে দক্ষিণ কাশ্মীরের পুলওয়ামার দালিপোরা এলাকাটি ঘিরে ফেলে যৌথবাহিনী| সেখানেই কয়েকটি বাড়িতে লুকিয়ে ছিল জঙ্গিরা| ঘিরে ফেলার পরই বাড়ি গুলি থেকে বাহিনীকে লক্ষ্য করে ঝাঁকে ঝাঁকে গুলি উড়ে আসে| পাল্টা গুলি চালাতে থাকে সেনাও| বেশ কিছুক্ষণ এই লড়াই চলার পর নিকেশ হয় দুই জঙ্গি| সঙ্গে স্থানীয় দুই বাসিন্দাও আহত হন,যার মধ্যে একজন হাসপাতালে মারা যান বলে সূত্রের খবর| এরপরই জঙ্গির দেহ খুঁজতে এলাকায় তল্লাশি চালান বাহিনীর জওয়ানেরা|তখনই তাদেরকে লক্ষ্য করে আবারও শুরু হয় গুলিবর্ষণ| শুরু হয়ে যায় দ্বিতীয় পর্যায়ে গুলির লড়াই| এতে তৃতীয় জঙ্গিকে নিকেশ করে যৌথবাহিনী|

পুলিশের তরফে যে প্রেস বার্তা দেওয়া হয় তাতে এরা প্রতেক্যেই জঈশ-ই-মহম্মদের হয়ে এখানে সক্রিয় ছিল| প্রত্যেকের নামেই সন্ত্রাসবাদী কার্যকলাপের একাধিক মামলা রয়েছে| এই জঙ্গিদের মধ্যে নিরাপত্তারক্ষী ইয়াকবু মেহমুদকে ২০১৮ সালে মসজিদের সামনে মারণ হামলার মূলচক্রী নাসির পণ্ডিত রয়েছে| নাসির পুলওয়ামার কারিমাবাদের বাসিন্দা| অন্যজন সোপিয়ানের বাসিন্দা উমর মির| পাকিস্তানের জঙ্গি সংগঠনের সঙ্গে উমর মিরের সক্রিয় যোগাযোগ ছিল বলে জানা গিয়েছে| পাকিস্তানে জঙ্গিদের মধ্যে খালিদ বলে জনপ্রিয় ছিল বলে জানতে পেরেছে বাহিনী| গুলির লড়াই শেষ হলেও বাড়ি থেকে এলাকার সাধারণ মানুষকে না বেরোনোর পরামর্ষ দিয়েছেন পুলিশ| প্রচুর পরিমাণে বিস্ফোরক মজুত করে বড় ধরনের হামলার ছক করছিল ওই নিকেস হওয়া জঙ্গিরা| তাই যত্রতত্র সেই দাহ্য বিস্ফোরক ছড়িয়ে রয়েছে গোটা এলাকায়| সেখান থেকে বড় কোন দুর্ঘটনা এড়ানোর জন্যই এই আবেদন বলে জানিয়েছে জম্মু-কাশ্মীর পুলিশ|

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here