১১২ ডায়ালে মিলবে সব জরুরি পরিষেবা

0

Last Updated on

কমন এমার্জেন্সি হেল্পলাইন চালুর পথে কেন্দ্র| প্রথম দফায় ২০টি রাজ্যে এই হেল্পলাইন নম্বর ১১২ পরিষেবা চালু হয়েছে| একটি নম্বর দিয়ে পুলিশ,দমকল ও নারী সহায়তার মত জরুরী পরিষেবাকে একত্রিত করা হয়েছে| এই যৌথ পরিষেবা ভারত সরকারের নির্ভয়া ফাণ্ডের মাধ্যমে কাজ করবে| যে কোনও অসুবিধেতে পড়া মানুষ এই নম্বরে ফোন করলে সাহায্য পাবেন বলে জানান এক আধিকারিক| মার্কিন যুক্তরাষ্ট্রে ৯১১ নম্বরে ডায়াল করলেও এইভাবেই জরুরি পরিষেবা মিলে থাকে| স্বরাষ্ট্র মন্ত্রক থেকে পাওয়া তথ্য অনুযায়ী,যে ২০টি রাজ্যে এখনও পর্যন্ত এই পরিষেবা চালু হয়েছে সেগুলি হল,হিমাচল প্রদেশ,অন্ধ্র প্রদেশ,উত্তরাখণ্ড,পাঞ্জাব,কেরালা,মধ্যপ্রদেশ,রাজস্থান,উত্তরপ্রদেশ,তেলেঙ্গানা,তামিলনাড়ু,গুজরাট,পুডুচেরি,লাক্ষাদ্বীপ,আন্দামান ও নিকোবর আইল্যাণ্ড,দমন ও দিউ,জম্মু-কাশ্মীর এবং নাগাল্যান্ড| এমার্জেন্সি রেসপন্স সাপোর্ট সিস্টেমের মাধ্যমে এই প্যান ইণ্ডিয়া জরুরী নম্বরটি কাজ করবে,যা আন্তর্জাতিক ভাবে স্বীকৃত| একটি প্যানিক বোতাম ইতিমধ্যেই সব মোবাইলে দেওয়ার নির্দেশ দেওয়া হয়েছে,যাতে জরুরি পরিষেবা ১১২ নম্বরে ফোন করলে তা সরাসরি পৌঁছয় এমার্জেন্সি রেসপন্স সেন্টারে|এই এমার্জেন্সি রেসপন্স সেন্টারগুলি প্রত্যেক রাজ্য ও কেন্দ্র শাসিত অঞ্চলগুলিকে স্থাপন করতে বলা হয়েছে| এই সেন্টারগুলির মাধ্যমে প্যানিক সিগনাল সরাসরি ভয়েস কলের,ই-মেলে বা অ্যাপের মাধ্যমে পেতে থাকবে| পরিষেবাভোগীরা তাদের মোবাইল থেকে ১১২ ডায়াল করতে পারেন অথবা স্মার্ট ফোনের পাওয়ার বোতামকে তিনবার চাপলেই কলটি রেসপন্স সেন্টারে পৌঁছে যাবে| সাধারণ ফোনের ক্ষেত্রে ৫ বা ৯ বোতামের মাধ্যমে মিলবে এই পরিষেবা| এই পরিষেবার জন্য আনুমানিক খরচ হবে ৩২১ কোটি টাকা যার মধ্যে ২৭৮ কোটি টাকা ইতিমধ্যেই পৌঁছে গিয়েছে রাজ্যগুলিতে| ২০১২সালে দিল্লিতে নির্ভয়ার ওপর হওয়া পাশবিক অত্যাচারের পরই নারী সুরক্ষা বাড়াতে এই পদক্ষেপ নেয় কেন্দ্র,জানিয়েছেন এক আধিকারিক| এই সিস্টেম সঠিকভাবে কাজ করছে কিনা, তা দেখতে একটি বিশেষ কমিটিও গঠন করা হয়েছে|

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here